শুক্রবার ১৫ই নভেম্বর ২০১৯ |
সমুদ্র পথে ভ্রমণ

কাতার ভ্রমণে আসছেন প্রায় ২ লাখ ৩৫ হাজার পর্যটক

 মঙ্গলবার ২৯শে অক্টোবর ২০১৯ সকাল ০৭:৪৯:০১
কাতার

কাতার পর্যটনে এ মৌসুমে রেকর্ড সংখ্যক পর্যটক আসতে পারে বলে অনুমান করছে কাতারের সমুদ্র বন্দর পরিচালনা কর্তৃপক্ষ মাওয়ানি। আসন্ন সমুদ্র পর্যটন মৌসুমে ৭৪ টি পর্যটন জাহাজে প্রায় ২ লাখ ৩৫ হাজার পর্যটক কাতারে এসে পৌঁছবেন। এটি বছরের সবচে সমৃদ্ধ পর্যটন মৌসুম হবে বলে মন্তব্য করেছেন মাওয়ানির কর্মকর্তারা।

এই মৌসুমে মেইন শিফ ৫ নামক জাহাজটি প্রথম এসে পৌঁছবে দোহা বন্দরে। মাওয়ানির পক্ষ থেকে করা একটি টুইটে এ তথ্য জানানো হয়। এছাড়া বেশ কয়েকটি মেগা শিপও এবার ভিড় করবে দোহা বন্দরে।

বিরাট ও বিলাসবহুল জাহাজের মধ্যে রয়েছে এম এস সি লিরিকা, আইডা প্রিমা, সী বোর্ন এনকোর, ক্রিস্টাল এসপিরিট, জুয়েল অব সী, কস্তা ডিডেমা, এম এস সি বেলিসিমা, সী বোর্ন ওভাশন, আজমারা কোয়েস্ট ইত্যাদি। এসব শিপ সামনের মৌসুমে কাতারে পর্যটক বহন করে আনবে। এমএসসি বেলিসিমা ও জুয়েল অব স্যার এটি প্রথম কাতার যাত্রা। সেপ্টেম্বর থেকে এপ্রিল পর্যন্ত চলবে এই পর্যটন মৌসুম।

গত মৌসুমেও প্রচুর পর্যটক সমুদ্রপথে এসেছিলেন কাতার ভ্রমণে। ২০১৮-১৯ সালে রেকর্ড সংখ্যক পর্যটককে স্বাগত জানিয়েছিল দোহা সমুদ্রবন্দর। কাতার মাওয়ানির হিসাবমতে, সেসময় ৪৪ টি জাহাজে প্রায় ১ লাখ ৪৪ হাজার পর্যটক এসেছিলেন কাতারে। বিভিন্ন বিলাসবহুল জাহাজ কর্তৃপক্ষ দোহা বন্দরে চলাচলের আগ্রহ প্রকাশ করায় পর্যটকের সংখ্যা বেড়েছে বলে জানিয়েছে মাওয়ানি।

এক্ষেত্রে সরকার ও মাওয়ানির প্রচেষ্টা উল্লেখযোগ্য। কাতারে সমুদ্রপথে পর্যটন উন্নত করতে তারা ইতোমধ্যে কার্যকরী বেশ কিছু পদক্ষেপ নিয়েছেন। এছাড়া ২০২২ সালের বিশ্বকাপকে সামনে রেখে দোহা বন্দরের ব্যবস্থাপনাও উন্নত করা হয়েছে।

গত জুনে পরিবহন ও যোগাযোগ মন্ত্রণালয় ঘোষণা দেয়, দোহা বন্দরে যেন একাধিক সুবিশাল জাহাজ একসাথে নোঙ্গর করতে পারে সে ব্যবস্থা করা হয়েছে।

কাতার ডেস্ক

সংশ্লিষ্ট খবর